৯ মার্চ শুক্রবার সকাল ৮টায় ঢাকার সেন্ট যোসেফ হায়ার সেকেন্ডারি স্কুলে শুরু হবে দুই দিনব্যাপী ডাচ্-বাংলা ব্যাংক-প্রথম আলো জাতীয় গণিত উত্সব ২০১৮ ও ষোড়শ বাংলাদেশ গণিত অলিম্পিয়াড। চলতি বছরের জুলাই মাসে রোমানিয়ায় অনুষ্ঠেয় ৫৯তম আন্তর্জাতিক গণিত অলিম্পিয়াডের জন্য বাংলাদেশ গণিত দলের সদস্যদের নির্বাচনের লক্ষ্যে এ বছর সারাদেশের ৩৫টি জেলা শহরে আঞ্চলিক গণিত অলিম্পিয়াডে প্রায় ২৫০০০ শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে। এই ৩৫টি আঞ্চলিক গণিত উত্সবের বিজয়ী ১৩০০ জন বিজয়ী অংশ নিচ্ছে জাতীয় গণিত উত্সবে ।

উত্সবে আসার সময় আঞ্চলিক পর্যায়ের বিজয়ী টি-শার্ট ও বিজয়ী সার্টিফিকেট অবশ্যই সঙ্গে নিয়ে আসবে। কারন ৯ ও ১০ মার্চ উত্সবের দুই দিনই এই টি-শার্ট পরে তোমাকে গণিত অলিম্পিয়াডসহ সব ধরনের অনুষ্ঠানে অংশ নিতে হবে।

উত্সবের প্রথম দিন ৯মার্চ প্রাইমারি, জুনিয়র, সেকেন্ডারি ও হায়ার সেকেন্ডারি এই চার ক্যাটাগরিতে শিক্ষার্থীদের জন্য অনুষ্ঠিত হবে উত্সবের মূল পর্ব ষোড়শ বাংলাদেশ গণিত অলিম্পিয়াড। এতে প্রাইমারি ক্যাটাগরি দুই ঘণ্টা, জুনিয়র ক্যাটাগরি তিন ঘণ্টা এবং সেকেন্ডারি ও হায়ার সেকেন্ডারি ক্যাটাগরির চার ঘণ্টাব্যাপী অলিম্পিয়াডে অংশ নেবে। গণিত অলিম্পিয়াড ছাড়াও থাকছে সিসিমপুর, ওয়াটার রকেট      উৎ​​ক্ষেপন, সাইকেল স্ট্যান্ট, বইমেলাসহ নানা আয়োজন।

১০ মার্চ সকালে সাড়ে আটটায় উত্সব শুরু হয়ে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও রুবিকস কিউব প্রতিযোগিতা এবং বেলা ১০টা থেকে ১১টা পর্যন্ত সমাপনী অনুষ্ঠান ও পুরস্কার বিতরণের মাধ্যমে শেষ হবে এ বছরের গণিত উত্সব। এবছর চার ক্যাটাগরিতে মোট ৮৫জনকে বিজয়ী করা হবে।

ডাচ্-বাংলা ব্যাংক লিমিটেডের পৃষ্ঠপোষকতায় এবং প্রথম আলোর ব্যবস্থাপনায় বাংলাদেশ গণিত অলিম্পিয়াড কমিটি এই উত্সবের আয়োজন করছে। 

 

পূর্ণাঙ্গ অনুষ্ঠানসূচি: