চতুর্ঘাত সমীকরণের বীজগাণিতিক সমাধানের উপায় আবিষ্কার করেছিলেন গণিতবিদ লোডোভিকো ফেরারি। ম্যাথমেটিকস উইদাউট বর্ডার' প্রতিযোগিতার আয়োজক কমিটি তাঁর নামেই এ বছর প্রথমবারের মতো আয়োজন করে ‘লোডোভিকো ফেরারি প্রতিযোগিতা’।

গত ৭ আগস্ট ভার্চ্যুয়ালি এই বীজগাণিতিক সমীকরণ সমাধানের প্রতিযোগিতার চূড়ান্ত পর্ব অনুষ্ঠিত হয়। বাংলাদেশ থেকে মোট ১০ জন প্রতিযোগী ভার্চ্যুয়ালি অংশগ্রহণ করে। প্রতিযোগীদের ৯০ মিনিটের মধ্যে ৪টি বীজগাণিতিক সমস্যা সমাধান করতে হয়। গতকাল ১০ আগস্ট এই আয়োজনের ফলাফল প্রকাশিত হয়েছে। বাংলাদেশ দল জিতে নিয়েছে ২টি সোনা, ২টি রৌপ্য ও ৩টি ব্রোঞ্জ পদক। এ ছাড়া ৩ জন পেয়েছে সার্টিফিকেট অ্যাওয়ার্ড।

বীজগণিতের এই প্রতিযোগিতায় স্বর্ণপদক পেয়েছে ঝিনাইদহ ক্যাডেট কলেজের শিক্ষার্থী তাহমিদ সায়েম ও চট্টগ্রামের ইস্পাহানি পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজের শিক্ষার্থী জিতেন্দ্র বড়ুয়া। রৌপ্যপদক পেয়েছে দিনাজপুরের সেন্ট ফিলিপস হাই স্কুল অ্যান্ড কলেজের শিক্ষার্থী সাগ্নিক রায় ও চট্টগ্রামের কাফকো স্কুল অ্যান্ড কলেজের শিক্ষার্থী রবিজিৎ চন্দ্র পাল। ব্রোঞ্জ পদক পেয়েছে কিশোরগঞ্জের এস ভি সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের হাবিবা সুলতানা, রংপুর জিলা স্কুলের শিক্ষার্থী মাহী মাহাবুব ও মো. হা-মীম আদনান। সার্টিফিকেট অ্যাওয়ার্ড পেয়েছে ঢাকার গবর্নমেন্ট ল্যাবরেটরি হাই স্কুলের শিক্ষার্থী জুনায়েদ তাওসিফ, টাঙ্গাইলের মির্জাপুর ক্যাডেট কলেজের শিক্ষার্থী ইশতিয়াক তাওসিফ ও রংপুর জিলা স্কুলের শিক্ষার্থী মো. সাদমান আশরাফ।

বাংলাদেশ গণিত অলিম্পিয়াড কমিটি মনে করে-এ ধরনের আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণের মাধ্যমে বীজগাণিতিক সমস্যা সমাধানে আমাদের শিক্ষার্থীরা আরও পারদর্শী হয়ে উঠবে।

বাংলাদেশ গণিত অলিম্পিয়াড-২০২১ বিজয়ীদের মধ্য থেকে বাছাই করে ‘লোডোভিকো ফেরারি প্রতিযোগিতা’-এর ১০ প্রতিযোগীকে নির্বাচন করা হয়।

ডাচ্-বাংলা ব্যাংকের পৃষ্ঠপোষকতায় ও প্রথম আলোর ব্যবস্থাপনায় বাংলাদেশ গণিত অলিম্পিয়াড কমিটি দেশজুড়ে স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীদের মধ্য থেকে বিভিন্ন আন্তর্জাতিক গণিত প্রতিযোগিতার জন্য দল নির্বাচন করে থাকে।

 

First Publish Prothom Alo, August 11, 2021